বিনিয়োগ করে কেউ ক্ষতিগ্রস্ত হবে সরকার সেটি চায়না ॥ প্রধানমন্ত্রী

বিনিয়োগ করে কেউ ক্ষতিগ্রস্ত হবে সরকার সেটি চায়না ॥ প্রধানমন্ত্রী

বিএনএ,ঢাকা:  প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, বিনিয়োগ করে কেউ ক্ষতিগ্রস্থ হোক এটা কাম্য নয়। তাই বিনিয়োগের আগে প্রতিষ্ঠানের বিষয়ে জেনে বুঝে বিনিয়োগ করতে ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীদের পরামর্শ দেন তিনি ।
বুধবার সকালে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে বাংলাদেশ সিকিউরিটি এক্সচেঞ্জ কমিশন-বিএসইসি’র রজতজন্তী উপলক্ষ্যে আয়োজিত অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী।

সে সময় তিনি আরও বলেন, বিনিয়োগ করে কেউ ক্ষতিগ্রস্ত হবে সরকার সেটি চায়না। কেউ যেন খুব বেশি যেনো লোভে না পড়ে যান। সীমা রেখেই পা ফেলতে হবে। তাহলেই কেউ ক্ষতিগ্রস্তহবে না।

তিনি বলেন, বাংলাদেশকে উন্নত করতে যা যা করনীয় সরকার তাই করছে। বেসরকারি খাতের উন্নয়নে সবচেয়ে বেশি কাজ করা হয়েছে। সরকারের বিভিন্ন পদক্ষেপের কারণে বর্ষায় দ্রব্যমূল্যের দাম বাড়েনি। তৃণমূলের মানুষের ভাগ্য উন্নয়নের জন্য অর্থনৈতিক পরিকল্পনা অনুযায়ী কাজ করছে সরকার।

শিক্ষা, অর্থনীতি, মানবসম্পদ, স্বাস্থ্য সবকিছুতে বাংলাদেশের অভাবনীয় উন্নতির কথা-জানিয়ে শেখ হাসিনা বলেন, ২০৪১ সালের মধ্যে দক্ষিণ এশিয়ায় বাংলাদেশ হবে উন্নত, সমৃদ্ধ, সুখী দেশ। এই লক্ষ্য নিয়েই সরকার কাজ করছে। বাংলাদেশ ইতোমধ্যে উন্নয়শীন দেশের যোগ্যতা অর্জন করেছে। স্বল্পোন্নত দেশের কাতার থেকে উত্তরণ হয়েছে। সরকারের লক্ষ্য হচ্ছে, ২০২১ সালে বাংলাদেশ হবে মধ্যম আয়ের দেশ।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমরা জনগণের ভাগ্যোন্নয়নের কথা মাথায় রেখে সুদূর প্রসারী পরিকল্পনা নিয়ে কাজ করছে সরকার। ২১০০ সালে বাংলাদেশ কেমন হবে সেই পরিকল্পনাও নেয়া হয়েছে। সরকার ডেল্টা প্ল্যান করেছে, যাতে ভবিষ্যত প্রজন্ম একটি সমৃদ্ধ দেশ উপহার পায়।

ক্ষুধামুক্ত বাংলাদেশ গড়ার প্রত্যয় ব্যক্ত করে শেখ হাসিনা বলেন, লাখো শহীদদের রক্তের বিনিময়ে স্বাধীনতা এসেছে। তাঁদের যে স্বপ্ন ছিল বাংলাদেশ হবে ক্ষুধামুক্ত, দারিদ্রমুক্ত, নিরক্ষরমুক্ত সেটিকে সামনে রেখে প্রত্যেককে কাজ করতে হবে।

আরকরিম চৌধুরী/সৈয়দ গোলাম নবী

Share